• রবিবার, ১৯ সেপ্টেম্বর ২০২১, ১০:৫১ পূর্বাহ্ন
  • বাংলা বাংলা English English

বিরামপুরে এনআইডি জালিয়াতি করায় কারাগারে কম্পিউটার অপারেটর

এম আই তানিম, বিরামপুর (দিনাজপুর)
প্রকাশ হয়েছে : সোমবার, ৯ আগস্ট ২০২১ | ৯:২৭ pm
                             
                                 

দিনাজপুরের বিরামপুরে জাতীয় পরিচয়পত্রে (এনআইডি) জন্ম তারিখ কমানোর অপরাধে সাব্বির হোসেন নামে এক কম্পিউটার অপারেটরকে ১৫ দিনের বিনাশ্রম কারাদ- এবং ওয়ারেশ আলী নামে একজনকে এক হাজার টাকা অর্থদ- প্রদান করেছে ভ্রাম্যমাণ আদালত। ভ্রাম্যমাণ আদালত পরিচালনা করেন উপজেলা নির্বাহী অফিসার ও এক্সিকিউটিভ ম্যাজিস্ট্রেট পরিমল কুমার সরকার।
কারাদ-প্রাপ্ত সাব্বির হোসেন (২৩) পৌর শহরের নতুন বাজার পোস্ট অফিসসংলগ্ন সোহেল কম্পিউটার এন্ড ফটোস্ট্যাট নামক প্রতিষ্ঠানের কম্পিউটার অপারেটর এবং পার্শ্ববর্তী নবাবগঞ্জ উপজেলার পশ্চিম পলাশবাড়ী গ্রামের ফজর আলীর ছেলে এবং অর্থদ-প্রাপ্ত ওয়ারেশ আলী (৫৬) পৌর শহরের শিমুলতলী মহল্লার গুলজার আলীর ছেলে।
ভ্রাম্যমাণ আদালত সূত্রে জানা গেছে, রোববার (৮ আগস্ট) বিকেলে পৌর শহরের নতুন বাজার (পোস্ট অফিসসংলগ) এলাকার সোহেল কম্পিউটার এন্ড ফটোস্ট্যাট নামক প্রতিষ্ঠানের কম্পিউটার অপারেটর সাব্বির হোসেন ওয়ারেশ আলী নামে এক ব্যক্তির জন্ম সাল ১৯৬৩-এর স্থলে ১৯৫৩ সাল বসিয়ে জাতীয় পরিচয়পত্র বানিয়ে দেয় বয়স্ক ভাতা প্রাপ্তির জন্য। ওই অভিযোগে প্রতিষ্ঠানটিতে অভিযান চালালে কম্পিউটার অপারেটর সাব্বির হোসেন অপরাধ স্বীকার করায় ১৫ দিনের বিনাশ্রম কারাদ- এবং ওয়ারেশ আলিকে এক হাজার টাকা অর্থদ- প্রদান করে ভ্রাম্যমাণ আদালত। এছাড়া প্রতিষ্ঠানটির মালিক উপস্থিত না হওয়ায় দোকানটি তালাবদ্ধ করে রাখে ভ্রাম্যমাণ আদালত।

উপজেলা নির্বাহী অফিসার পরিমল কুমার সরকার বিষয়টি নিশ্চিত করে জানান, জাতীয় পরিচয়পত্র জালিয়াতি করার অভিযোগে সাব্বিরকে ভোক্তা অধিকার সংরক্ষণ আইন ২০০৯-এর ৪৫ ধারায় ১৫ দিনের বিনাশ্রম কারাদ- এবং ওয়ারেশ আলীকে এক হাজার টাকা অর্থদ- প্রদান করা হয়েছে।

সংবাদটি শেয়ার করুন


এই বিভাগের আরো খবর