• মঙ্গলবার, ০৩ অগাস্ট ২০২১, ০৭:৩৬ পূর্বাহ্ন
  • বাংলা বাংলা English English
শিরোনাম
শিগগির বাংলাদেশে ‘কোভ্যাক্সিন’র ট্রায়াল চালাতে চায় ভারত সাতক্ষীরায় জুলাই মাসে করোনায় ১৫, উপসর্গে ২০৫ জনের মৃত্যু গোবিন্দগঞ্জ ছিনতাইকৃত মহিষ আক্কেলপুরে উদ্ধার রবিউল এবার পেল সুচিকিৎসার ব্যবস্থা, সমাজসেবা থেকে পেল আর্থিক সহায়তা বোয়ালমারীতে জেলা পরিষদ বানিজ্যিক ভবনের কক্ষ থেকে দেশীয় অস্ত্র উদ্ধার সুন্দরগঞ্জে টিকা সম্প্রসারণে অবহিতকরণ সভা মাধবপুরে কঠোর নজরদারিতে এসিল্যান্ড অভিযানে ১৩টি মামলায় জরিমানা সেই পরিত্যক্ত ঘরেই মারা গেলেন জনপ্রিয় শিক্ষক যত্রতত্র ফেলা হচ্ছে বর্জ্য, হুমকির মুখে পরিবেশ বকশীগঞ্জে ৩৩৩ ফোন ও খুদে বার্তা পাঠিয়ে খাদ্য সহায়তা পেয়েছেন ১৪০০ পরিবার!

মণিরামপুরে কঠোর লকডাউন: ১৩ দোকানির জরিমানা

আনোয়ার হোসেন, (মনিরামপুর) যশোর
প্রকাশ হয়েছে : বুধবার, ২৩ জুন ২০২১ | ৮:৩৫ pm
                             
                                 

যশোরের মনিরামপুরে করোনা পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণ করতে উপজেলা প্রশাসন সাত দিনের কঠোর লকডাউন দিয়েছেন। আজ বুধবার (২৩জুন) লকডাউনের প্রথম দিন। সকাল থেকে লকডাউন কার্যকর করতে থানা পুলিশকে ব্যাপক তৎপর থাকতে দেখা গেছে।
লকডাউনে দূরপাল্লার যানবাহন না চললেও সকাল থেকে মণিরামপুর বাজারে যান চলাচল স্বাভাবিক ছিল। এরপর দুপুর ১২টা থেকে বাজারে জনসমাগম কমতে থাকে।
এদিকে লকডাউন অমান্য করে ব্যবসা প্রতিষ্ঠান খোলা রাখায় ১৩ ব্যবসায়ীকে জরিমানা করেছেন ভ্রাম্যমাণ আদালত।
আদালতের নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট ও উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা সৈয়দ জাকির হাসান বুধবার দুপুরে মনিরামপুর বাজারে অভিযান চালিয়ে এই জরিমানা করেন।
দণ্ডপ্রাপ্তরা হলেন, বাজারে গ্রিল ব্যবসায়ী আসাদুর রহমান এক হাজার টাকা, মুদি দোকানি সুশান্ত কুমার ৫০০ টাকা, কীটনাশক ব্যবসায়ী মিজানুর রহমান এক হাজার টাকা, কাঁচা বাজারের আড়ৎদার ইউসুফ আলী এক হাজার টাকা ও এজাজ হোসেন ৫০০ টাকা, চা দোকানি ইকবাল হোসেন ২০০ টাকা, এবি অটো মোটরসাইকেল শোরুম এক হাজার টাকা, বাস চালক বাবুল হোসেন ৫০০ টাকা, সাতক্ষীরা ঘোষ ডেয়ারীর মালিক অনুপ ঘোষ এক হাজার টাকা, হার্ডওয়ারের দোকানি শামীম রেজা ৫০০ টাকা, প্লাস্টিক ব্যবসায়ী রতন দাস ৫০০ টাকা, আনিসুর রহমান এক হাজার টাকা ও চা দোকানি আলমগীর হোসেন ২০০ টাকা।
আদালতের বেঞ্চ সহকারি শাহিন আলম এই তথ্য নিশ্চিত করেছেন।
শাহিন আলম বলেন, অভিযান পরিচালনাকালে আদালত দেখতে পান লকডাউন অমান্য করে এসব ব্যবসায়ীরা তাদের দোকানপাট খুলে রেখেছেন। সেই কারণে আদালত অভিযান পরিচালনা করে ১৩ জনকে আট হাজার ৯০০ টাকা জরিমানা করেছেন।
মণিরামপুরে করোনা পরিস্থিতি ক্রমশ অবনতির দিকে যাওয়ায় বুধবার থেকে সাত দিনের লকডাউন দিয়েছেন উপজেলা প্রশাসন। আগামী ২৯ জুন পর্যন্ত চলবে এই লকডাউন। লকডাউনে ওষুধের দোকান ছাড়া নিত্যপ্রয়োজনীয় পণ্যের দোকান খোলা থাকবে দুপুর ১২ টা পর্যন্ত।

সংবাদটি শেয়ার করুন


এই বিভাগের আরো খবর