• মঙ্গলবার, ০৯ মার্চ ২০২১, ১২:০৩ পূর্বাহ্ন
  • বাংলা বাংলা English English

রামগতিতে বিএনপি প্রার্থীর ভোট বর্জন

নিজস্ব প্রতিবেদক
প্রকাশ হয়েছে : রবিবার, ১৪ ফেব্রুয়ারী ২০২১ | ১২:০২ pm
                             
                                 

লক্ষ্মীপুরের রামগতি পৌরসভা নির্বাচনে ভোট বর্জনের ঘোষণা দিয়েছেন বিএনপি মনোনীত মেয়র প্রার্থী সাহেদ আলী পটু। পোলিং এজেন্টদের কেন্দ্র থেকে বের করে দেয়া ও ভোটারদের কাছ থেকে প্রিঙ্গারিং নিয়ে নৌকা প্রতীকে জোর পূর্বক ভোট নেয়া সহ নানান অনিয়মের অভিযোগ এনেছেন তিনি।
রবিবার (১৪ ফেব্রুয়ারি) সকাল সোয়া ১১ টার দিকে ফেসবুক লাইভে এসে বিএনপির মেয়র প্রার্থী সাহেদ আলী পটু ভোট বর্জনের ঘোষণা দেন।

এ সময় ধানের শীষ প্রতিকের প্রার্থী সাহেদ আলী পটু বলেন, সকাল ৮ টায় ভোট গ্রহণ শুরু হয়। এরপর ঘণ্টা দেড়েক ভোটের পরিবেশ কিছুটা ভালো ছিল। সকাল সাড়ে ৯ টার পর আওয়ামী লীগের মেয়র প্রার্থীর কর্মী-সমর্থকরা ভোট কেন্দ্রের নিয়ন্ত্রণ নিতে শুরু করেন। এরপর কয়েকটি কেন্দ্র থেকে ভয়ভীতি দেখিয়ে তার পোলিং এজেন্টদের বের করে দেয়া হয়।
এরপর একে একে রামগতি পৌরসভায় ৯টি ওয়ার্ডের ১০টি কেন্দ্রের সবগুলো দখল করে নেন তারা। তারা বুথের ভেতরে অবস্থান নিয়ে ভোটারদের নৌকা প্রতীকে ভোট দিতে বাধ্য করেন। এ কারণে ভোটাররা তাদের পছন্দের মেয়র প্রার্থীকে ভোট দিতে পারেননি।

তিনি আরও অভিযোগ করে বলেন, নির্বাচনে অনিয়মের বিষয়ে ম্যাজিষ্ট্রেট সহ আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনীকে বলার পরও তারা কোনো ব্যবস্থা নেয়নি। মনে হচ্ছে তারা অসহায়।
এদিকে সকাল সাড়ে ৮টার দিকে সাংবাদিকদের এক প্রশ্নের জবাবে ভোটের পরিবেশ সুষ্ঠু হচ্ছে বলে জানান।

উল্লেখ্য: ১৪ ফেব্রুয়ারি সকাল ৮টা থেকে লক্ষ্মীপুরের রামগতি পৌরসভায় ভোট ইভিএমে গ্রহণ শুরু হয়। চলবে বিকাল ৪টা পর্যন্ত। এ প্রথম লক্ষ্মীপুরে ইলেকট্রনিক ভোটিং মেশিনে (ইভিএম) ভোট নেয়া হচ্ছে। সকাল থেকে পুরুষ ভোটারের চেয়ে নারী ভোটার বেশি লক্ষ্য করা গেছে। এ পৌরসভায় মেয়র পদে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করছেন ৬ জন প্রার্থী। ১০টি ওয়ার্ডে সংরক্ষিত ও সাধারণ কাউন্সিলর পদে ৪৯ জন প্রার্থী প্রতিদ্বন্দ্বিতা করছেন। এবার ২০ হাজার ৯০৫ ভোটার ইভিএমে ভোট দেবেন।

সংবাদটি শেয়ার করুন


এই বিভাগের আরো খবর