• বৃহস্পতিবার, ২৮ অক্টোবর ২০২১, ১১:৪৭ অপরাহ্ন
  • বাংলা বাংলা English English

শরণখোলায় শিক্ষকের মুক্তির দাবীতে ছাত্র-ছাত্রী ও এলাকাবাসীর মানববন্ধন

আবু হানিফ, বাগেরহাট
প্রকাশ হয়েছে : বৃহস্পতিবার, ১৭ জুন ২০২১ | ১১:২৩ pm
                             
                                 

বাগেরহাটের শরণখোলায় ষড়যন্ত্র মুলক মিথ্যা মামলা প্রত্যাহার সহ এক স্কুল শিক্ষককে নিঃশ্বর্ত মুক্তির দাবীতে এক মানবন্ধন অনুষ্ঠিত হয়েছে। উপজেলার সাউথখালী ইউনিয়নের বকুলতলা এলাকায় ৪৭ নং শরণখোলা সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীদের অভিভাবক সহ স্থানীয় বাসিন্দাদের আয়োজনে বিদ্যালয় প্রাঙ্গনে ১৭জুন (বৃহস্পতিবার) সকাল ১১টায় এ মানবন্ধনের আয়োজন করা হয়।
সংশ্লিষ্টরা জানায়, উপজেলার চালিতাবুনিয়া এলাকার বাসিন্দা আ. কাদের হাওলাদারের ছেলে ও ৪৭ নং শরণখোলা সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক মো. শহিদুল ইসলাম (৪৫)এর বিরুদ্ধে এক শিশুকে যৌন হয়রানির অভিযোগ তুলে সোনাতলা (মডেল বাজার) এলাকার বাসিন্দা মো. কাঞ্চন বয়াতীর ছেলে মো.কালাম হোসেন বয়াতী (৩৮) বাদী হয়ে সম্প্রতি শরণখোলা থানায় নারী ও শিশু নির্যাতন দমন আইনে একটি মামলা দায়ের করেন। উক্ত মামলায় পুলিশ শহিদুলকে গ্রেফতার করে জেল হাজতে পাঠায়।
শিক্ষক নেতা মো. বেলায়েত হোসেনের সঞ্চালনায় উক্ত মানবন্ধন অনুষ্ঠানে বক্তব্য রাখেন, বিদ্যালয়ের সভাপতি মো. জাকারিয়া হোসাইন, স্থানীয় বাসিন্দা প্রভাষক আ. বারেক শরীফ, বিদ্যালয়ের সহকারী শিক্ষক মো. শাহ-আলম, মো. আ. ছাত্তার , ম্যানেজিং কমিটির সদস্য প্রভাষক মো. নাছরুল্লাহ, সাবেক ইউপি সদস্য মো. শাহজাহান আলী মাতুব্বর, সাবেক প্রধান শিক্ষক মো. রুস্তুম আলী ও ম্যানেজিংকমিটির সাবেক সভাপতি মো. আসলাম খান সহ স্থানীয় অনেক বাসিন্দা। এ সময় ক্ষুদ্ধ অভিবাবকরা অনতিবিলম্বে শিক্ষক শহিদুলের বিরুদ্ধে দায়ের করা মিথ্যা মামলা প্রতাহার সহ তার নিঃশর্ত মুক্তির দাবী করে বলেন, মামলার বাদী কামাল বয়াতী একজন মামলা বাজ লোক। তার নামে একাধিক মামলা রয়েছে। মানুষের ক্ষতি করাই তার পেশা। শিক্ষক শহিদুলের কাছে মোটা অংকের টাকা দাবী করে তা না পেয়ে একটি চক্র তাকে এমন কাল্পনিক মামলায় ফাঁসিয়েছেন ।

সংবাদটি শেয়ার করুন


এই বিভাগের আরো খবর